প্রচ্ছদ রেসিপি

সংগ্রহে রাখুন চিংড়ি মাছের মজাদার ২৫ টি রেসিপি একসাথে

2
সংগ্রহে রাখুন চিংড়ি মাছের মজাদার ২৫ টি রেসিপি একসাথে

পড়া যাবে: 10 মিনিটে

এলাজি জনিত কারন ছাড়া চিংড়ি মাছ পছন্দ করেন না এমন মানুষ খুব কম আছেন। ভর্তা থেকে শুরু করে কোরমা কি করা যায় না এই মাছটি দিয়ে। তাই আজ সাজিয়েছি এই চিংড়ি মাছের ২৫ টি রেসিপি দিয়ে। তো চলুন যেনে নেই রেসিপিগুলি।

চিংড়ি মাছের কোর্মা

উপকরণ:চিংড়ি মাছ আধা কেজি, পেয়াজ কুচি এক কাপ, গুড়ো মরিচ দেড় চা চামচ (ঝাল অনুযায়ী), গুড়ো হলুদ হাফ চা চামচ, জিরা বাটা দেড় চা চামচ, রসুন বাটা এক চা চামচ, কাচাঁমরিচ আট থেকে দশটি, নারকেল একটি, তেল ও লবণ পরিমাণমত

প্রস্তুত প্রণালী: প্রথমে মাছ কেটে ভালো করে লবণ পানিতে ধুয়ে নিন। নারকেল কুড়িয়ে হাফ নারকেল বেটে রসটুকু(নারবেল দুধ) চিপে নিয়ে ছোবড়া গুলো ফেলে দিন, এবং বাকি কোড়ানো নারকেল ওভাবেই রাখুন। এবার কড়াইয়ে তেল দিয়ে পেঁয়াজ কুচি দিয়ে ভাজতে থাকুন। মাঝারি লাল হলে মাছগুলো ভাজা ভাজা করুন এবং অল্প পানি দিয়ে গুড়ো মরিচ, হলুদ, জিরা ও রসুন বাটা এবং লবণ দিয়ে ভালো করে কষিয়ে নিন। ভাল করে কষানো হলে এবার নারকেল দুধ এবং কোরানো নারকেল ও কাচাঁমরিচ দিয়ে মাছগুলো মাখা মাখা ভুনা করুন। ভুনা হয়ে গেলে নামিয়ে গরম গরম ভাত অথবা পোলাও দিয়ে পরিবেশন করুন।

চিংড়ির বাটি চচ্চড়ি

উপকরণ :চিংড়ি মাছ ১ কাপ (মাঝারি), নারকেলবাটা ২ টেবিল চামচ, সর্ষে বাটা ১ চা-চামচ, কাঁচা লংকা বাটা ২টি,হলুদগুরো ১ চা-চামচ, সর্ষের তেল ৩ টেবিল চামচ, লবণ স্বাদমতো, কাঁচা মরিচ ফালি ২-৩টি।

প্রণালি :ওপরের সব উপকরণ একসঙ্গে মেখে একটি ঢাকনাযুক্ত স্টিলের বাটিতে দিয়ে প্রেশার কুকারে ভাপে সেদ্ধ করে নিন। গরম ভাতের সঙ্গে পরিবেশন করুন চিংড়ির বাটি চচ্চড়ি।

স্পাইসি মাসালা চিংড়ি

উপকরণ:১৮-২০টি চিংড়ি মাছ,২ টেবিল চামচ ঘি,১ চা চামচ জিরা,৫-৬ টি রসুনের কোয়া কুচি,১টি মাঝারি আকারের পেঁয়াজ কুচি,২ টেবিল চামচ লাল মরিচের পেস্ট,১ চা চামচ জিরা গুঁড়ো,১ চা চামচ ধনে গুঁড়ো,১ টেবিল চামচ টমেটো কেচাপ,১ চা চামচ ভিনেগার,২ টেবিল চা চামচ ধনেপাতা কুচিলবণ স্বাদমত

প্রণালী:প্রথমে চুলায় প্যান গরম করতে দিন। এবার এতে ঘি দিয়ে দিন। ঘি গলে গেলে এতে জিরা, রসুন কুচি, পেঁয়াজ কুচি দিয়ে নাড়ুন। পেঁয়াজ বাদামি রং হয়ে এলে এতে লাল মরিচের পেস্ট দিয়ে দিন। তারপর এতে জিরা গুঁড়া, ধনে গুঁড়া দিয়ে কিছুক্ষণ নাড়ুন। যদি প্রয়োজন পড়ে এতে সামান্য পানি দিন।এরপর এতে চিংড়িগুলো দিয়ে দিন। মশলার সাথে চিংড়িগুলো ভাল করে মিশিয়ে নিন। এরপর এতে লবণ দিয়ে দিন। অল্প একটু পানি দিয়ে অল্প আঁচে ৪-৫ মিনিট রান্না করুন। খুব বেশি পানি দেবেন না।মাছ রান্নার শেষে টমেটো কেচাপ, ভিনেগার এবং ধনেপাতা কুচি দিয়ে নামিয়ে ফেলুন।

পুঁই চিংড়ির পাকোড়া

উপকরণ:লবণ (সিকি চামচ) ও হলুদ (সিকি চামচ) দিয়ে মেখে দুই টেবিল চামচ সরিষার তেল দিয়ে ভেজে রাখা চিংড়ি। সরিষার তেল ২৫০ গ্রাম, পুঁইশাকের বড় বড় পাতা (ভাপিয়ে নেওয়া) ২০-২৫টি। লবণ আধা চা-চামচ, কাঁচা মরিচ কুচি ৪টি, কর্নফ্লাওয়ার ২ টেবিল চামচ, ময়দা ২ টেবিল চামচ, চালের গুঁড়া আধা কাপ, পানি ১ কাপ, শুকনা মরিচ ভাঙা ১ চা-চামচ, লেবুর রস দেড় টেবিল চামচ, পেঁয়াজ টুকরা (বড়) ১টি, পোস্তদানা সিকি কাপ বা পরিমাণমতো।

প্রণালি:চিংড়িপাটায় মিহি করে বেটে নিন। ফ্রাইপ্যানে দুই টেবিল চামচ সরিষার তেল গরম করে পেঁয়াজ কুচি দিয়ে ভাজুন। বাদামি রং হয়ে এলে বাটা চিংড়ি মাছ, সিকি চামচ লবণ, কাঁচা মরিচ কুচি দিয়ে নেড়ে আধা টেবিল চামচ লেবুর রস দিয়ে ভাজুন। আধা কাপ পানিতে চালের গুঁড়া ২-৩ ঘণ্টা আগে থেকেই ভিজিয়ে রাখুন। একটি প্লেটে পোস্তদানা ছড়িয়ে রাখুন। চালের গুঁড়ার সঙ্গে ময়দা, কর্নফ্লাওয়ার, বাকি লবণ, এক টেবিল চামচ লেবুর রস ও মরিচ দিয়ে ভালো করে মিশিয়ে ঘন ব্যাটার তৈরি করুন। একেকটি পুঁইপাতায় সামান্য চিংড়ি পেস্টের পুর ভরে তা চার ভাঁজ করে মুড়িয়ে নিন। অন্যদিকে ফ্রাইপ্যানে সরষের তেল গরম করুন। পুরভরা পাতা ব্যাটারে চুবিয়ে পোস্তাদানায় গড়িয়ে ডুবোতেলে ভাজুন।

চিংড়ি-ম্যঙ্গো ইন মেওনিজ

উপকরণ: চিংড়ি ৩০০ গ্রাম, আম একটা, আমের জুস দুই চামচ, মেওনিজ দুই টেবিল চামচ, মাস্টার্ড পাউডার দুই চামচ, লেটুসপাতা ৩টে, লেবুর রস দুই চামচ, লাল, হলুদ, সবুজ ক্যাপসিকাম একটা করে, মূলো একটি, অলিভ অয়েল দুই চামচ, গোলমরিচগুঁড়ো এক চামচ।

প্রণালী: চিংড়ি মাছ ধুয়ে নিন। তাতে লেবুর রস, লবণ, গোলমরিচ মাখিয়ে ম্যারিনেট করুন। এরপর অলিভ অয়েল দিয়ে চিংড়ি মাছগুলো হালকা ভেজে রাখুন। একটা পাত্রে মেওনিজ দিয়ে তার মধ্যে আমের জুস ও মাস্টার্ড পাউডার দিয়ে একটা সস বানান। এরপর ক্যাপসিকাম ডুমো করে কেটে নিন। মুলো পাতলা গোল করে কাটুন। আম টুকরো করে কেটে রাখুন। এরপর সবজিগুলোর মধ্যে প্রন দিয়ে তাতে সস ও গোলমরিচের গুঁড়ো দিয়ে মিশিয়ে নিন। একটা পাত্রে লেটুস পাতা সাজিয়ে তার মধ্যে মিশ্রণটা ঢেলে পরিবেশন করুন।

কচু-চিংড়ি

উপকরণ : কচু ৩০০ গ্রাম, মাঝারি চিংড়ি মাছ ৩০০ গ্রাম, হলুদগুঁড়ো এক চামচ, লঙ্কাগুঁড়ো এক চা চামচ, জিরেগুঁড়ো এক চামচ, ধনেগুঁড়ো এক চামচ, ঘি এক চামচ, গরমমশলা এক চামচ, নারকেল কুচি এক চামচ, কাঁচালঙ্কা চারটি, তেল ও লবণ পরিমাণমতো।

প্রণালী: কচুর খোসা ছাড়িয়ে ডুমো করে কেটে নিন। কড়াতে তেল দিয়ে কচু হালকা করে ভেজে তাতে হলুদ, মরিচগুঁড়ো, ধনে ও জিরেগুঁড়ো দিয়ে কষিয়ে নিন। এরপর চিংড়ি মাছ ও নারকেল কুচি দিন। মশলা থেকে তেল ছেড়ে এলে অল্প পানি দিয়ে ঢেকে দিন। কিছুক্ষণ ফোটার পর ঘি, গরম মশলাগুঁড়ো দিয়ে নামিয়ে ফেলুন।

চিংড়ি মাছের চুড়চুড়া

উপকরণ: চিংড়ি ২০০ গ্রাম, কাঁচামরিচ চারটি, ধনেপাতা এক আঁটি, মটর ডালের বড়ি ছয়টি, লেবুর রস চার চামচ, জিরে তিন চামচ, সরষে দুই চামচ, রসুন এক কোয়া, একটি মাঝারি পেঁয়াজ, পাঁচফোড়নের গুঁড়া, তেল, লবণ পরিমাণমতো।

প্রণালী: চিংড়ি মাছ বেছে ভালো করে ধুয়ে লবণ, হলুদ মাখিয়ে ভেজে নিন। কাঁচামরিচ, জিরে, সরষে ও রসুন একসঙ্গে বেটে নিন। পেঁয়াজ কুচিয়ে নিন। ডালের বড়ি ভেজে রাখুন। কড়াতে তেল দিয়ে পাঁচফোড়ন দিয়ে নেড়ে পেঁয়াজ কুচি দিয়ে নাড়তে থাকুন। পেঁয়াজ একটু হালকা ভাজা হলে মশলা বাটা দিন। কিছুক্ষণ পর ধনে পাতা কুচি ও কাঁচালঙ্কা দিয়ে নেড়ে লবণ, হলুদ ও পানি দিয়ে ঢেকে দিন। ফুটে উঠলে চিংড়ি মাছ ও বড়ি দিন। লেবুর রস দিন। পানি শুকিয়ে মাখা মাখা হয়ে এলে নামিয়ে পরিবেশন করুন।

চিংড়ি ভুনা

উপকরণ:চিংড়ি-১০টি, টমেটো-২টি, কাঁচামরিচ-৪টি, পেঁয়াজ কুচি ২ টেবিল চামচ, পেঁয়াজ বাটা-২ চা চামচ, আদা-রসুন বাটা-১ চা চামচ, মরিচ গুঁড়া- আধা চা চামচ, হলুদ গুঁড়া-আধা চা চামচ, জিরা গুঁড়া-১ চা চামচ, তেল-আধা কাপ, ধনেপাতা-সিকি কাপ, লবণ-১ চা চামচ, পানি-আধা কাপ।

প্রণালি:কড়াইয়ে তেল গরম করে চিংড়ি মাছ হলুদ ও লবণ দিয়ে মাখিয়ে হালকা করে ভেজে আলাদা পাত্রে তুলে রাখুন ।এবার ওই তেলেই পেঁয়াজ কুচি দিয়ে কিছুক্ষণ ভাজুন। এরপরে সব বাটা মশলা দিয়ে কষান। মশলা কষানো হলে মাছগুলো দিয়ে কিছুক্ষণ কষিয়ে পানি দিয়ে দিন। পানি ফুটে উঠলে টমেটো দিয়ে দিন। মাখা মাখা হলে নামিয়ে পরিবেশন করুন।

দই চিংড়ি

উপকরণ :টক দই ১ কাপ, মাঝারি সাইজের চিংড়ি ৫০০ গ্রাম, পেঁয়াজ কিউব করে কাটা ১ কাপ, আস্ত কাঁচামরিচ ৫-৬টি, রসুন বাটা ১ চা চামচ, হলুদ গুঁড়া ১ চা চামচ, মরিচ গুঁড়া আধা চা চামচ, লবণ স্বাদ অনুযায়ী তেল পরিমাণ মতো।

প্রস্তুত প্রণালি :প্রথমে চিংড়ি মাছের খোসা ছাড়িয়ে ধুয়ে পরিষ্কার করে রাখুন। এরপর একটি কড়াইতে তেল গরম করে তাতে কিউব করা পেঁয়াজ এবং চিংড়ি মাছ দিয়ে হালকা করে ভেজে নিয়ে একে একে সব উপকরণ দিয়ে ভালো করে কষিয়ে নিন। তারপর টক দই এবং কাঁচামরিচ দিয়ে ঢেকে রান্না করুন। রান্না হয়ে গেলে নামিয়ে পরিবেশন করুন সাজিয়ে।

চিংড়ি পাকোড়া

উপকরণ :১. চিংড়ি মাছ ২৫০ গ্রাম,২. পেঁয়াজ কুচি ১টি,৩. মরিচের গুঁড়া সামান্য,৪. কাঁচামরিচ কুচি ১টি,৫. ময়দা আধা কাপ, ৬. রসুন কুচি দুই কোয়া,৭. ধনিয়াপাতা কুচি সামান্য,৮. লেবুর রস এক টেবিল চামচ,৯. লবণ স্বাদমতো এবং তেল ভাজার জন্য।

প্রণালি : প্রথমে চিংড়ি মাছ ধুয়ে পানি ঝরিয়ে নিন। একটি বাটিতে চিংড়ি নিয়ে তাতে ময়দা, রসুন কুচি, পেঁয়াজ কুচি, মরিচের গুঁড়া, কাঁচামরিচ কুচি, ধনিয়াপাতা কুচি এবং লবণ একসঙ্গে মিশিয়ে নিন। এবার এতে লেবুর রস ও দুই টেবিল চামচ তেল দিয়ে ভালো করে মিশিয়ে নিন। এখন একটি প্যানে তেল গরম করে অল্প আঁচে পাঁচ মিনিট চিংড়িগুলো ভেজে নিন। বাদামি রঙের হয়ে গেলে চিংড়িগুলো তেল থেকে উঠিয়ে প্লেটে তুলে নিন। টমেটো সস এবং চাটনি দিয়ে গরম গরম পরিবেশন করুন দারুণ সুস্বাদু চিংড়ি পাকোড়া।

চিংড়ি পিঁয়াজু

উপকরণঃ• চিংড়ি- ১ কাপ (লেজসহ),• আদা বাটা- ১ টেবিল চামচ,• রসূন বাটা- ১ চা চামচ,• পিঁয়াজ কুঁচি- আধা কাপ,• মটর ডাল- আধা কাপ, • কাঁচামরিচ- ৪ টি,• লবণ- স্বাদমতো,• খাবার সোডা- ১ চিমটি,• ভাজার জন্য তেল- পরিমাণমতো।

প্রণালীঃ*চিংড়ি মাছ ১ টেবিল চামচ লেবুর রস ও লবন দিয়ে মেখে কিছুক্ষণ রেখে দিন।*এরপর তেল ও চিংড়ি বাদে সব উপকরন একসঙ্গে মাখিয়ে রাখুন।*তারপর চিংড়ির লেজ বের করে রেখে ডাল বাটা মাখা মিশ্রণ লাগিয়ে নিন চিংড়িতে।*এবার প্যানে তেল গরম করে এতে চিংড়ি লাল করে ভেজে তুলুন।*সস বা চাটনির সাথে গরম গরম পরিবেশন করুন।

চিংড়ির কাটলেট

উপকরণ:চিংড়ি ২ কাপ , কাঁচা মরিচ কুচি ১/২ চা চামচ, আদা বাটা ১/২ চা চামচ, পুদিনা পাতা কুচি ১ চা চামচ, মরিচ বাটা ১/২ চা চামচ, ডিম ১ টি, গোল মরিচ বাটা ১/২ চা চামচ, পাউরুটি গুঁড়া ১/২ কাপ, পেঁয়াজ মিহি কুচি ২ টেবিল চামচ,ময়দা ১ টেবিল চামচ, রসুন কুচি ১ চা চামচ, তেল ভাজার জন্য ।

প্রণালী:১। চিংড়ি খোসা ছাড়িয়ে ধুয়ে কিমা কর। বাটা মসলা,পেঁয়াজ,রসুন,কাঁচামরিচ ও পুদিনাপাতা দিয়ে মিশাও। রুটির গুঁড়া,ডিম ও ১ চা চামচ লবণ দিয়ে মিশাও।২। ময়দার ছিট দিয়ে চিংড়ির কাটলেট তৈরি কর। ডুবো তেলে ভাজ।৩। লেবুর রস অথবা সসের সাথে গরম পরিবেশন কর।

চিংড়ি কাবাব

যা যা লাগবে:কিমা এক কাপ,কাঁচামরিচ কুচি ১ টেবিল চামচ,ধনেপাতা কুচি ১ টেবিল চামচ,পেঁয়াজ কুচি ২ টেবিল চামচ,সেদ্ধ আলু পরিমাণমতো, কর্নফ্লাওয়ার পরিমাণমতো,ডিম ২টি,ব্রেডক্রাম পরিমাণমতো,টমেটো সস পরিমাণমতো,লবণ স্বাদমতো।

যেভাবে করবেন:ডিম, ব্রেডক্রাম ও তেল বাদে সব উপকরণ একসঙ্গে মিশিয়ে নিতে হবে। এবার পছন্দমতো আকারে গোল করে নিন। এবার তা ডিমে ডুবিয়ে ব্রেডক্রাম মেখে ডুবো তেলে বাদামি করে ভাজতে হবে। তারপর পরিবেশন করুন পছন্দের সস আর সালাদের সঙ্গে। ইচ্ছা করলে পোলাও বা সাদা ভাতেও খেতে পারেন পছন্দের চিংড়ি কাবাব।

চিংড়ি চপ

যা যা লাগবে:খোসা ছাড়ানো বড় চিংড়ি ২ কাপ,আদাবাটা আধা চা চামচ, মরিচ গুঁড়া আধা চা চামচ, গোলমরিচ গুঁড়ো আধা চামচ, পিঁয়াজকুচি ২ টেবিল চামচ, রসুন কুচি ১ চা চামচ, কাঁচামরিচ কুচি আধা চা চামচ, পুদিনা পাতা কুচি ১ চা চামচ, ডিম ১ টি, টোস্ট বিস্কিট গুঁড়া আধা কাপ, ময়দা ১ টেবিল চামচ, লবণ স্বাদমতো, তেল পরিমাণমতো।

যেভাবে করবেন:প্রথমে চিংড়ি খোসা ছাড়িয়ে ধুয়ে নিতে হবে। এরপর একটি পাত্রে সব মসলা, লবণ, পিঁয়াজ, রসুন, কাঁচামরিচ এবং পুদিনাপাতা কুঁচি দিয়ে ভালো করে মিশিয়ে নিতে হবে। মিশ্রণটি আঠালো করার জন্য ময়দা দিলে ভালো হবে। একটি ডিম ফেটিয়ে আলাদা বাটিতে রাখুন। একটি প্যানে ডুবোতেলে ভাজার জন্য তেল দিয়ে তেল গরম হতে দিন। তেল গরম হলে একটি করে চিংড়ির গায়ে মিশ্রণটি লাগিয়ে পছন্দ মত আকার দিন। এবার ডিমের মিশ্রণে চুবিয়ে টোস্ট বিস্কিট গুড়োর মধ্যে গড়িয়ে নিয়ে তেলে ভাজুন। চাইলে বল আকারেও করতে পারেন। লাল করে ভেজে তুলে সসের সঙ্গে গরম গরম পরিবেশন করুন মজাদার কুড়মুড়ে চিংড়ি চপ।

নারকেলী চিংড়ি ভুনা

উপকরণ:চিংড়ি মাছ হাফ কেজি, পেয়াজ কুচি ১ কাপ, গুড়ো মরিচ দেড় চা চামচ ( বা আপনার রুচি অনুযায়ী), গুড়ো হলুদ হাফ চা চামচ ( বা আপনার রুচি অনুযায়ী), জিরা বাটা দেড় চা চামচ,রসুন বাটা ১ চা চামচ ( বা আপনার রুচি অনুযায়ী), আস্ত কাচাঁ মরিচ ৮/১০ টি, নারকেল ১টি, তেল ও লবণ পরিমাণ মত

প্রস্তুত প্রণালী:প্রথমে মাছ কেটে ভালো করে লবন পানিতে ধুয়ে নিন।নারকেল কুড়িয়ে হাফ নারকেল বেটে রসটুকু(নারবেল দুধ) চিপে নিয়ে ছোবড়া গুলো ফেলে দিন, এবং বাকি কোড়ানো নারকেল ওভাবেই রাখুন। এবার কড়াই এ তেল দিয়ে পেয়াজ কুচি দিয়ে ভাজতে থাকুন, মাঝারি লাল হলে মাছগুলো ভাজা ভাজা করুন এবং অল্প পানি দিয়ে গুড়ো মরিচ,হলুদ,জিরা বাটা ও রসুন বাটা,লবন দিয়ে ভালো করে কষান। ভাল করে কষিয়ে তেল উঠিয়ে ফেলুন। এবার নারকেল দুধ এবং কোরানো নারকেল ও কাচাঁ মরিচ দিয়ে মাছ গুলো মাখা মাখা ভুনা করুন, লবন চেখে নামিয়ে গরম গরম ভাত অথবা পোলাও দিয়ে পরিবেশন করুন।

চিংড়ি মাছের মালাইকারি

উপকরণঃ৫৫০ গ্রাম মাঝারি থেকে বড় আকারের চিংড়ি,৩ টেবিল চামচ তেল,১ চা চামচ সর্ষে দানা,১ টি মাঝারি আকারের পেঁয়াজ,১ চা চামচ রসুন বাটা,১ চা চামচ আদা বাটা, ১ চা চামচ ধনে পাতা বাটা,১ চিমটি জিরা গুঁড়ো,১/২ চা চামচ তেতুলের রস,,২/৩ টি শুকনো লংকা,১ চা চামচ লংকা গুঁড়ো,লবন স্বাদমতো,১২০ মিলিলিটার নারকেলের দুধ,২ টেবিল চামচ ধনে পাতা কুঁচি

প্রস্তুত প্রণালীঃপ্রথমে ভালো করে চিংড়ি বেঁছে ধুয়ে নিন। এরপর এতে সামান্য লবন ছিটিয়ে মেখে ২ মিনিট রেখে আবার ভালো করে ধুয়ে নিন।তারপর একটি প্যানে তেল গরম করে প্যান নামিয়ে গরম তেলে সর্ষে দানা দিয়ে ঢাকনা দিয়ে ঢেকে ফেলুন।সর্ষে দানা গরম তেলে দিলে ফুটে উঠতে থাকে। সর্ষে দানার ফুটে ওঠা বন্ধ হলে এতে পেঁয়াজ দিয়ে আবার বসান। পেঁয়াজ লালচে হয়ে এলে রসুন ও আদা বাটা দিয়ে ভালো করে নেড়ে নিন এবং ধনে পাতা বাটা, জিরাগুঁড়ো , লংকা গুঁড়ো এবং লবণ দিয়ে নেড়ে নিন।মসলা কিছুক্ষণ নেড়ে নিয়ে এতে তেতুলের রস এবং নারকেলের দুধ ঢেলে দিন। এবং নেড়ে দিয়ে রেখে দিন।২/৩ মিনিট পর ফুটে উঠার ভাব হলে ধুয়ে রাখা চিংড়ি দিয়ে দিন। এবং মৃদু আঁচে চিংড়ি সেদ্ধ না হওয়া পর্যন্ত রাখুন।চিংড়ি সেদ্ধ হয়ে এলে এবং কিছুটা ঝোল মাখামাখা হয়ে এলে এতে ধনে পাতা কুঁচি ছড়িয়ে নামিয়ে নিন।

রসুন চিংড়ি

উপকরণ : মাঝারি চিংড়ি ৫০০ গ্রাম, লেবুর রস ২ টেবিল চামচ, পাপরিকা সিকি চা-চামচ, লবণ স্বাদমতো, মাখন ২ টেবিল চামচ,তেল ২ টেবিল চামচ, রসুন কুচি ২ টেবিল চামচ, লাল মরিচ থেঁতলানো ২টা, চিনি ১ চা-চামচ।

প্রণালি : চিংড়ি ধুয়ে কিচেন টাওয়েল দিয়ে মুছে শুকিয়ে নিন। তাতে ১ টেবিল চামচ লেবুর রস, পাপরিকা ও ১ চিমটি লবণ মেখে পরিবেশন পাত্রে রাখুন। চুলায় প্যানে মাখন দিয়ে রসুন কুচি ও থেঁতলানো লাল মরিচ দিয়ে একটু ভেজে নিন। এবার বাকি সব উপকরণ দিয়ে একটু নেড়েচেড়ে খুব অল্প পানি দিন। ঘন সস হয়ে এলে মাছের ওপর ঢেলে দিন। এবার ২০০ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপে ১৫-২০ মিনিট প্রিহিটেড ওভেনে বেক করুন। নামিয়ে গরম গরম পরিবেশন করুন ফ্রায়েড রাইস বা পোলাওর সঙ্গে।

ঝিঙ্গা দিয়ে চিংড়ি

উপকরণ:বড় পেঁয়াজ কুচিঃ ২ টি,রসুন, কুচি করাঃ ৪ কোয়া,চিংড়ি, মাঝারি সাইজঃ ৮-১০ টি,ঝিঙ্গাঃ ৩-৪ টি, হলুদ গুঁড়াঃ ১ চা চামচ,মরিচ গুঁড়াঃ ১ চা চামচ,জিরা গুঁড়াঃ ১ চা চামচ,ধনে গুঁড়াঃ ১ চা চামচ,লবণঃ স্বাদমতো,পানিঃ ১ কাপ

প্রণালী:পেঁয়াজ কুচি, রসুন কুচি তেল এ দিয়ে হালকা ভেজে নিয়ে চিংড়িগুলো দিয়ে দিতে হবে।৩/৪ মিনিট ভাজা হলে ঝিঙ্গা দিয়ে আরো ৪/৫ মিনিট রান্না করতে হবে।পরে হলুদ গুঁড়া, মরিচ গুঁড়া, জিরা গুঁড়া, ধনে গুঁড়া, স্বাদমতো লবণ দিতে হবে।তারপর আরো কিছুক্ষণ কষিয়ে ১ কাপ পানি দিয়ে ঢাকনা দিয়ে রান্না করতে হবে।মাখা মাখা হলে নামিয়ে নিন।

চিংড়ির সাসলিক

উপকরণ:খোসা ছাড়ানো বড় চিংড়ি: ২ কাপ,ছোট পেঁয়াজ অর্ধেক করে কাটা: ১ কাপ,গাজর কিউব করে কাটা: ১/২ কাপ,ক্যাপসিকাম কিউব করেকাটা: ১/২ কাপ,শক্ত টমেটো কিউব করে কাটা: ১/২ কাপ, কাঁচামরিচ অর্ধেক করে কাটা: ১০-১২ টি,সরিষার তেল (ভাজার জন্য): পরিমাণমতো,সাদা গোলমরিচ গুঁড়া: ১ চা চামচ,সয়া সস: ১ টেঃ চামচ,লবণ: পরিমাণমতো,আদার রস: ১ চা চামচ,লেবুর রস: ১ চা চামচ

প্রণালী:চিংড়ি গোল করে কেটে সয়া সস, লেবুর রস, লবণ, আদার রস দিয়ে চুলায় দিয়ে ঢেকে দিতে হবে। শুকিয়ে গেলে নামাতে হবে। গাজর অল্প লবণ-পানিতে সিদ্ধ করে শুকিয়ে গেলে নামতে হবে। সাসলিক স্টিকে চিংড়ি, গাজর, চিংড়ি, ক্যাপসিকাম, চিংড়ি, পেঁয়াজ, চিংড়ি, টমেটো, চিংড়ি, কাঁচা মরিচ এইভাবে পর্যায়ক্রমে গেঁথে নিতে হবে। ফ্রাইংপ্যানে তেল গরম করে সাসলিক অল্প ভেজে উঠিয়ে গোলমরিচের গুঁড়া ছিটিয়ে পরিবেশন করতে হবে।

গার্লিক বাটার শ্রিম্প

উপকরণ:৮ টেবিল চামচ আনসল্টেড মাখন,দেড় পাউন্ড মাঝারি আকৃতির চিংড়ি,লবণ এবং গোল মরিচের গুঁড়ো, ৫ কোয়া রসুনের কুচি,১/৪ কাপ চিকেন স্টক,১টি লেবুর রস,২ টেবিল চামচ পার্সলি পাতা কুচি

প্রণালী:১। মাঝরি আঁচে চুলায় প্যান গরম করতে দিন। এতে দুই টেবিল চামচ মাখন দিয়ে দিন।২। মাখন গলে এলে এতে লবণ, গোল মরিচের গুঁড়ো এবং চিড়িং মাছ দিয়ে ২-৩ মিনিট নাড়ুন। চিংড়ি মাছগুলো হালকা বাদামী হয়ে এলে নামিয়ে ফেলুন।৩। একই প্যানে রসুন কুচি দিয়ে এক মিনিট নাড়ুন। এরপর এতে চিকেন স্টক এবং লেবুর রস দিয়ে দিন।৪। চিকেন স্টক জ্বাল হয়ে ঘন হয়ে এলে চুলা কমিয়ে দিন। তারপর এতে মাখন দিয়ে দিন।৫। মাখন গলে গেলে এতে ভাজা চিংড়ি মাছগুলো দিয়ে দিন।৬। চিংড়ি মাছগুলো কিছুটা রান্না হয়ে এলে নামিয়ে ফেলুন। উপরে পার্সলি পাতা কুচি দিয়ে পরিবেশন করুন মজাদার গার্লিক বাটার শ্রিম্প।

চিংড়ি বিরিয়ানি

উপকরণ :১. চিংড়ি মাছ ৫০০ গ্রাম,২. বাসমতি চাল ৫০০ গ্রাম,৩. টক দই ৩ টেবিল চামচ,৪. বেরেস্তা ৩টা পেঁয়াজের,৫. হলুদ গুঁড়া ১/২ টেবিল চামচ,৬. মরিচ গুঁড়া হাফ টেবিল চামচ,৭. ঘি ২ টেবিল চামচ,৮. রসুন-আদা পেস্ট ২ টেবিল চামচ,৯. লবণ পরিমাণ মতো,১০. পুদিনা পাতা স্বাদমতো,১১. ২ টেবিল চামচ কুকিং অয়েল।

বিরিয়ানী মসলা করতে লাগবে :১. শাহী জিরা ১ টেবিল চামচ,২. দারু চিনি ৪ টা স্টিক,৩. এলাচি ৫ টা,৪. লবঙ্গ ৪ টা,৫. মৌরি ১ টেবিল চামচ।> সব কিছুকে তেল ছাড়া টেলে নিয়ে গুঁড়‍া করে নিতে হবে।

প্রণালি : চিংড়িকে গরম মসলা, দই , আদা রসুন, তেল দিয়ে ৩ ঘন্টা মেরিনেট করে রাখবেন। তারপর পানি ছাড়া শুকনা করে রান্না করে নিন ১০/১৫ মিনিট।> চালকে এলাচি, দারুচিনি , গোলাপ জল দিয়ে হাফ বয়েল করুন।> ঘি দিয়ে পেঁয়াজ বেরেস্তা করে রাখুন।> একটি ভারী তলার হাঁড়িতে এখন লেয়ার করে চাল, পেঁয়াজ, চিংড়ি, বেরেস্তা পুদিনা পাতা দিয়ে ঢেকে দমে রাখুন ২০ মিনিট।> চাল সেদ্ধ হয়ে গেলে গরম গরম পরিবেশন করুন।

চিংড়ি ভর্তা

যা যা লাগবে-চিংড়ি মাঝারি সাইজের – ১ কাপ,পেঁয়াজকুচি-১ টি মাঝারি সাইজের,কাঁচামরিচ কুচি ৩/৪ টি ঝাল যেমন পছন্দ সেরকম দিবেন, ধনেপাতাকুচি- ২ টেবিল চামচ,লেবুর খোসা কুচি(lemon zest) ১ চা চামচ,লেবুর রস ১ চা চামচ,লবণ- স্বাদমতো,সরিষার তেল- স্বাদমতো

প্রণালি-চিংড়িগুলো খোসা পরিষ্কার করে ধুয়ে নিন। চিংড়িগুলোকে হাফ চা-চামচ তেল দিয়ে একটু ভেজে নিন। এবার সব কিছু দিয়ে মেখে নিন চিংড়ি আধা ভাঙা থাকবে গরম গরম ভাতের সাথে পরিবেশন করুন খেতে কিন্তু অসাধারণ ।

ডাল চিংড়ি বড়া

উপকরণ:মসুর ডাল ১ কাপ। ছোট চিংড়ি ২০০ গ্রাম। পেঁয়াজকুচি আধা কাপ। কাঁচামরিচ ৪,৫টি। ধনেপাতা কুচি।হলুদগুঁড়া ১ চা-চামচ। মরিচগুঁড়া ১ টেবিল-চামচ। লবণ স্বাদ মতো। তেল ভাজার জন্য পরিমাণ মতো।

পদ্ধতি: ডাল দুতিন ঘণ্টা ভিজিয়ে রাখুন৷ নরম হলে বেটে নিন।চিংড়িগুলো পরিষ্কার করে ধুয়ে ডালের সঙ্গে কাঁচামাছগুলো বেটে নিন। এবার তেল বাদে, বাকি সব উপকরণ ডাল-চিংড়ি বাটার সঙ্গে মাখিয়ে নিন।কড়াইতে তেল গরম করে মাখানো ডালের খামির চামচ অথবা হাত দিয়ে পছন্দ মতো আকারে তেলে ছেড়ে দিন।চুলার আঁচ মাঝারি রেখে মচমচে এবং লাল করে ভাজুন। তারপর নামিয়ে কিচেন টিস্যু পেপারের উপর তুলে রাখুন এবং গরম গরম পরিবেশন করুন ৷

টিপস: ডাল এবং চিংড়ি না বেটে ব্লেন্ডারে একটু পানি দিয়ে ব্লেন্ড করতে পারেন। সেক্ষেত্রে পেঁয়াজ এবং বাকি সব উপকরণের সঙ্গে চার টেবিল-চামচের মতো বেসন মিলিয়ে নেবেন। আর যদি পাটায় বেটে নেন তাহলে বেসন দরকার নাই।

লাউ চিংড়ির তরকারি

উপকরণ :লাউ ছোট ছোট টুকরো করা অর্ধেক, চিংড়ি মাছ ২৫০ গ্রাম, পেঁয়াজ কুচি ১ টেবিল-চামচ, হলুদ গুঁড়া আধা চা-চামচ, মরিচ গুঁড়া অর্ধেক চা-চামচ, জিরা গুঁড়া, ১ চা-চামচ, কাঁচামরিচ আস্ত ৪/৫টি, ধনেপাতা কুচি ২ টেবিল-চামচ, রসুন বাটা ১ চা-চামচ,লবণ স্বাদ অনুযায়ী, তেল পরিমাণমত।

প্রস্তুত প্রণালী :লাউ ধুয়ে টুকরো করে নিন। চিংড়ির খোসা ছাড়িয়ে ধুয়ে পরিষ্কার করে নিন। একটি ফ্রাইপ্যান বা কড়াইয়ে তেল গরম করে তাতে লাউ ছাড়া সব উপকরণ একসঙ্গে দিয়ে ভালো করে কষিয়ে নিন। এরপর ভুনা চিংড়িগুলো একটি বাটিতে তুলে রাখুন। তারপর ওই মসলায় লাউ দিয়ে আবার কষিয়ে ঢেকে রান্না করুন। লাউ সেদ্ধ হয়ে এলে তাতে ভুনা চিংড়ি, জিরা গুঁড়া, ধনেপাতা কুচি ও কাঁচামরিচ দিয়ে কিছুক্ষণ চুলায় রেখে দিন। লাউ মাখা মাখা করে নামিয়ে পরিবেশন করুন লাউ চিংড়ি তরকারি।

বাংলা হেলথ কেয়ার /এসপি

Loading...