প্রচ্ছদ ঘরোয়া চিকিৎসা

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন কি না সেটা নিজে নিজেই পরীক্ষা করতে পারবেন

53

পড়া যাবে: < 1 minute

ঘরে বসেই পরীক্ষা- প্রা’ণঘা’তী করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে বিশ্বব্যাপী এখন পর্যন্ত মৃত্যু হয়েছে ৩২৮৫ জন। আর আক্রান্ত হয়েছেন ৯৫ হাজার মানুষ। এরইমধ্যে বিশ্বের কমপক্ষে ৮১টি দেশে ছড়িয়ে পড়েছে প্রাণঘাতী ভাইরাসটি। আতঙ্কে এসব দেশের মানুষ এখন ঘর থেকেও বের হতে চান না।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, এই ভাইরাসে কেউ আক্রান্ত হলে এর লক্ষণ বুঝতে অনেকদিন সময় লাগে। সাধারণত করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে জ্বর বা কাশি নিয়ে হাসপাতালে যাওয়ার আগেই ফুসফুসের ৫০% ফাইব্রোসিস (সূক্ষ্ম অংশুসমূহের বৃদ্ধি) তৈরি হয়ে যায়, যার মানে অনেক দেরি হয়ে গেছে।

আরও পড়ুন:  করোনা ভাইরাস কী এবং কীভাবে ছড়ায়

এ’রইমধ্যে তাইওয়ানের বি’শেষজ্ঞরা একটি নতুন পদ্ধতি আবিষ্কার করেছেন। সেই পদ্ধতিতে কেউ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন কি না, সেটা নিজে নিজেই পরীক্ষা করতে পারবেন। পদ্ধতিটি খুবই সহজ, প্রতিদিন সকালে উঠেই কয়েক সেকেন্ডের পরীক্ষায় নিশ্চিন্ত হতে পারেন।

প’রীক্ষাটা হলো: পরিচ্ছন্ন প’রিবেশে লম্বা একটা শ্বাস নিয়ে সেটাকে ১০ সেকেন্ডের কিছুটা বেশি সময় ধরে আটকে রাখুন। যদি এই দম ধরে রাখার সময়ে আপনার কোনো কা’শি না আসে, বুকে ব্যথা বা চাপ অনুভব না হয়, মানে কো’নো প্রকার অস্বস্তি না লাগে, তার মানে আপনার ফুসফুসে কোনো ফাইব্রোসিস তৈরি হয়নি অর্থাৎ কোনো ইনফেকশন হয়নি, আপনি সম্পূর্ণ ঝুঁকিমুক্ত আছেন।

আরও পড়ুন:  *করোনা সন্দেহ হলে প্রাথমিকভাবে আপনার করণীয়*

জাপানের চিকিৎসকরা আরেকটি সহজ উপদেশ দিয়েছেন যে, সবাই চেষ্টা করবেন যেন আপনার গলা ও মুখের ভেতরটা কখনো শুকনো না হয়ে যায়, ভেজা ভেজা থাকে। তাই প্রতি পনেরো মিনিট অন্তর একচুমুক হলেও পানি পান করুন।

তারা কারণ হিসেবে বলেছেন, কোনোভাবে ভাইরাসটি আপনার মুখ দিয়ে শরীরে প্রবেশ করলেও সেটি পানির সঙ্গে পাকস্থলীতে চলে যাবে, আর পাকস্থলীর এসিড মুহূর্তেই সেই ভাইরাসকে মেরে ফেলতে সক্ষম।

বাংলা হেলথ কেয়ার /এসপি

  • 1
    Share
Loading...